শুক্রবার , ১৯ এপ্রিল ২০২৪ | ৬ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অর্থনীতি
  2. আইন-আদালত
  3. আন্তর্জাতিক
  4. আর্জেন্টিনা
  5. ইউক্রেন
  6. ইরান
  7. খেলাধুলা
  8. চীন
  9. জবস
  10. জাতীয়
  11. তথ্যপ্রযুক্তি
  12. দুর্ঘটনা
  13. দেশজুড়ে
  14. ধর্ম
  15. প্রবাস

ফাইতংয়ে মাহা ‘সাংগ্রাইং’ পোয়েঃ ১৩৮৬ উদযাপন উপলক্ষে জলকেলি উৎসব সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান

প্রতিবেদক
admin
এপ্রিল ১৯, ২০২৪ ৭:২১ অপরাহ্ণ

মো.ইসমাইলুল করিম নিজস্ব প্রতিবেদক:

পার্বত্য জেলা বান্দরবানের ১১টি পাহাড়ি জনগোষ্ঠীর মারমা, ম্রো, খেয়াং ও খুমিদের ‘সাংগ্রাইং’ নামে সর্ববৃহৎ সামাজিক উৎসব মঙ্গল শোভাযাত্রার মধ্য দিয়ে শুরু হয়েছে। এর মধ্যে লামায় ফাইতং ইউনিয়ন শিবাতলী পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে মাহা সাংগ্রাইং পোয়েঃ ১৩৮৬ উদযাপন উপলক্ষে জলকেলি উৎসব সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে শুক্রবার (১৯ এপ্রিল) দিনব্যাপী এই সাংগ্রাইং উৎসব। মাহা সাংগ্রাই পোয়েঃ উপলক্ষে মৈত্রী পানি বর্ষণ ও মনোজ্ঞ সাংস্কৃতি ‘সাংগ্রাইং উৎসব উপলক্ষে বিশাল আয়োজন অংশ নেন প্রধান অতিথি হিসেবে লামা উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ মোস্তফা জামাল, প্রধান আকর্ষণ বান্দরবান জেলা যুবলীগের আহবায়ক কেলুমং মার্মা, বিশেষ অতিথি হিসেবে লামা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী প্রদীপ কান্তি দাশ, ফাইতং ইউপি চেয়ারম্যান মো. ওমর ফারুক, দুই ভাইস চেয়ারম্যান মো. জাহেদ উদ্দিন, মিল্কী রানী দাশ, ফাইতং ইউনিয়ন আওয়ামিলীগ সহসভাপতি শহিদুল্লাহ মিন্টু, সহসভাপতি মাহামুদুর রহমান শুক্কুর, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আব্দুল জলিল কোম্পানি, সাংগঠনিক সম্পাদক ক্যম্রাউ মার্মা, মেম্বার বাবু থোইহ্লাচিং মার্মা, যুবলীগ সভাপতি বাবু থোয়াইং সানু, সহসভাপতি বাবু সুইছিংমং মার্মা, লামা ছাত্রলীগের সভাপতি শহিদুল ইসলাম সাদ্দাম, সাধারণ সম্পাদক মেহেদী হাসান রনি, সাংবাদিক ইসমাইলুল করিম নিরব ফাইতং উৎসব উদযাপন কমিটি সভাপতি ছাইনুমং মার্মা, সাধারণ সম্পাদক থোয়াইহ্লাচিং মার্মা সহ উৎসব উদযাপন কমিটি সদস্যবৃন্দ ও ফাইতং ইউনিয়ন আওয়ামিলীগ অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মী প্রমূখ।

আজ সকাল থেকে নিজেদের ঐতিহ্যের পোশাকে শিশু ও তরুণ-তরুণীরা শিবাতলী পাড়া মাঠে আসতে শুরু করেন। মারমা তরুণ লুঙ্গি ও নানান রংয়ের শার্ট ও সাংগ্রাইং টি-শার্ট পরে, তরুণীরা বার্মিজ থামি, গলায় মালা ও নানান রংয়ে হাতে ছাতা, মার্মা তরুণেরা ধুতি পরে, মাথায় সাদা পাগড়ি বেঁধে, তরুণীরা পিনন, খাদি, গলায় মুদ্রার মালাসহ অন্যান্য জাতিগোষ্ঠীও বর্ণাঢ্য ঐতিহ্যের পোশাকে মঙ্গল শোভাযাত্রা অংশ নিতে আসেন। ফাইতং উৎসব উদযাপন কমিটি নেতারা বলেছেন, সাংগ্রাইং’ উৎসব মধ্যে দিয়ে সাংগ্রাইং শুরু হয়েছে। মাঠে মৈত্রী পানি বর্ষণ ও শেষদিনে একই স্থানে মৈত্রী পানি বর্ষণের পাশাপাশি নিজেদের ঐতিহ্য সংস্কৃতি পোশাকে নৃত্যরত সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান আয়োজন করা হয়। জেলায় ১১টি পাহাড়ি জনগোষ্ঠীর পাশাপাশি বাঙালিদের থেকেও অংশগ্রহণ থাকবে। পার্বত্য জেলা বসবাসরত তিন সংখ্যাগরিষ্ঠ জনগোষ্ঠী মারমাদের সাংগ্রাইং ও ত্রিপুরাদের বৈসু, চাকমা বিজুকে সম্মিলিতভাবে বৈসাবি উৎসব বলা হয়। বাংলা বর্ষপঞ্জি অনুযায়ী চাকমা, তঞ্চঙ্গ্যা ও ত্রিপুরা বাংলা বর্ষপঞ্জি অনুযায়ী বছরের শেষ দুই দিন (২৯ ও ৩০ চৈত্র) ও নতুন বছরের প্রথম দিন (পয়লা বৈশাখ) এই তিন দিন বৈসু, বিজু ও বিষু উদযাপন করে। বার্মী বর্ষপঞ্জি অনুসরণে মারমা, খেয়াং, খুমিসহ পাঁচটি জাতিগোষ্ঠী বছরের শেষ দিনে (৩০ চৈত্র) অথবা বাংলা বছরের প্রথম দিনে সাংগ্রাইং উৎসব উদ্‌যাপন করে থাকেন। খ্রিষ্টান ধর্মের অনুসারী বম, পাংখুয়া ও লুসাই এই তিন জনগোষ্ঠী বৈসাবি উৎসব উদযাপন করেন না।

সর্বশেষ - Uncategorized

আপনার জন্য নির্বাচিত

কক্সবাজার টুয়াক নির্বাচনে সভাপতি পদে আনারস প্রতিকে লড়বেন তোফায়েল আহমেদ

হাঁস মার্কা প্রতিকের প্রার্থী শাহিনা আক্তারের ব্যাপক গণসংযোগ

হাঁস মার্কা প্রতিকের প্রার্থী শাহিনা আক্তারের ব্যাপক গণসংযোগ

ব্যর্থ প্রেমের দুঃখ ভুলে ঘুরে দাঁড়ানোর দিন আজ

মালয়েশিয়া বঙ্গবন্ধুর জন্মবার্ষিকী পালন

টেকনাফের হোয়াইক্যং সীমন্ত দিয়ে ৬৩ জন বিজিপি অনুপ্রবেশ

আশ্রয়ে থাকা মিয়ানমার সেনা ও বিজিপিসহ ২৮৮ সদস্যকে ফেরত পাঠালো বিজিবি

নারায়ণগঞ্জে নিবার্চন সহিংসতার প্রতিবাদে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল করেছে পূজা উদযাপন পরিষদ

পেকুয়ায় একই পরিবারের ৫ জনকে কুপিয়ে জখম

ঠাকুরগাঁওয়ে নাইট কোচ ট্রাক মুখোমুখি সংঘর্ষ আহত ৮

এড. সৈয়দ রেজাউর রহমান কক্সবাজার জেলা জজ আদালতের নতুন পিপি