সোমবার , ১৩ মে ২০২৪ | ৯ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অর্থনীতি
  2. আইন-আদালত
  3. আন্তর্জাতিক
  4. আর্জেন্টিনা
  5. ইউক্রেন
  6. ইরান
  7. খেলাধুলা
  8. চীন
  9. জবস
  10. জাতীয়
  11. তথ্যপ্রযুক্তি
  12. দুর্ঘটনা
  13. দেশজুড়ে
  14. ধর্ম
  15. প্রবাস

স্লুইসগেইট রক্ষণাবেক্ষণ কমিটি ও পানি উন্নয়ন বোর্ডের গাফিলতিতে ফের ধ্বস মগনামায়-উজানটিয়ার মানুষ পানিবন্ধির আশংকায়

প্রতিবেদক
admin
মে ১৩, ২০২৪ ২:১৪ অপরাহ্ণ

মোঃ জালাল উদ্দিন পেকুয়া;

কক্সবাজারের পেকুয়ার মগনামায় পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্তাবাবুদের দায়ীত্বজ্ঞানহীন আচরণে ও স্লুইসগেইট রক্ষণাবেক্ষণ কমিটির অর্থলিপ্সার কারণে চরম পানিবন্ধির ঝুঁকির সম্মুখীন হচ্ছেন মগনামা ইউনিয়নের মটকাভামঙ্গা, ধরধরি ঘোনা,চেরাংঘোনা,উজানটিয়ার পেকুয়ার চর,ঘোষাল পাড়া ও ষাটদুনিয়া পাড়ার প্রায় ৪ হাজারের অধিক পরিবার ও মৎস্যচাষীরা।অনিশ্চয়তায় পড়বে কৃষি ও মৎস্য চাষ। ফলে আর্থিক স্থবিরতায় পড়বে পেকুয়া উপজেলার সাধারণ মানুষসহ ব্যবসায়ীরা। কারণ কৃষি ও মৎস্য চাষের উপর নির্ভরশীল উপকুলীয় এ উপজেলা। কৃষিকাজ কিংবা মৎস চাষে উৎপাদন কম হলেই ব্যাপক প্রভাব পড়ে এ অঞ্চলের খেটে খাওয়া মানুষের জীবন যাত্রায়। তাই এ অনিশ্চিত ভবিষ্যত নিয়ে শংকা জানিয়েছেন সাধারণ কৃষক ও মৎস্যচাষীরা।
সরেজমিন গেলে স্থানীয় চাষীরা জানান, পানি উন্নয়ন বোর্ডের দূর্নীতিবাজ কর্মকর্তারা ৪১ নং স্লুইসসহ সব স্লুইস গেইট গুলো কতিপয় লোভী প্রকৃতির রাজনৈতিক নেতাদেরকে ইজারা দেয়। ইজারায় শর্ত থাকে রক্ষণাবেক্ষণ করার। কিন্তু তা না করে স্লুইস গেইটের প্রবেশ মুখে জাল বসিয়ে প্রতিনিয়ত স্লুইস গেইটকে ঝু্কিপূর্ণ করে তুলে। তারা দিনে রাতে জাল থেকে মাছ আহরণ করতে গিয়ে স্লুইস গেইটের উপরিভাগের মাঠি ও পাইপে ক্ষতিসাধন করতে থাকে। এর পাশাপাশি লবণ ব্যবসায় জড়িত কয়েকজন প্রভাবশালী ব্যক্তিও এ স্লুইস গেইটের ক্ষতিসাধনের জন্য দায়ী। অথচ পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্তাবাবুরা এসব দেখেও না দেখার ভান করে এগুলোর বিষয়ে কোন কার্যকরি পদক্ষেপ গ্রহণ করেন না। বড় ধরণের কোন ভাঙ্গণ হলে জরুরী সংষ্কারের নামে অর্থ লুঠে নেন। দ্রুত সংষ্কার করা না হলে অচিরেই ধ্বসে পড়বে এ স্লুইস গেইট। ফলে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হবে পেকুয়া উপজেলার সাথে উজানটিয়া এবখ মগনামার দক্ষিণ ও পূর্ব অংশের জনসাধারণের। এতে নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যের নাগাল পাওয়া দুষ্কর হয়ে পড়বে। পতিত হবে নানাবিধ সমস্যায়। গত বছর স্থানীয় সরকার অধিদফতরের বরাদ্ধে নামে মাত্র সংষ্কার করা হয়েছিল। কিন্তু দু-একবার সামান্য বৃষ্টিতেই ফের ধ্বসের মুখে স্লুইসগেইট।
গত কয়েকদিন আগে ভরা তিঁতিতে জোয়ারের পানি বেশি হওয়ায় ৪১ নং স্লুইস গেইটের উপর দিয়ে পানি প্রবেশ করায় স্লুইস গেইটে ছোট্র আকারের কয়েকটি ছিদ্র হয়। এ ছিদ্রটির সংষ্কারের উদ্যোগ তাৎক্ষণিক নেয়া হলে এত বড় ভাঙ্গন হত না। ছিদ্র হওয়ার বিষয়ে পানি উন্নয়ন বোর্ডসহ স্থানীয় প্রশাসনকে জানানো হলেও তারা কোন প্রকার ব্যবস্থা না নেয়ায় আজ এ ঝুঁকিতে পতিত হচ্ছি আমরা।
স্থানীয় লবণ চাষী হেলাল উদ্দিন জানান, প্রভাবশালী কয়েকজন ব্যক্তি ও স্লুইসগেইট ইজারাদারদের খামখেয়ালীপনায় আজকে আমরা বড় ধরণের আর্থিক ঝুঁকিতে পতিত হচ্ছি। আল্লাহ না করুক যদি স্লুইট গেইটের বাকি অংশগুলো ক্ষতিগ্রস্ত হলে কোটি টাকার লোকসানে পড়ব।
মৎস্যচাষী জয়নাল আবেদীন জানান,স্থানীয় ইউপি সদস্য শাহ আলম, স্লুইস গেইট ইজারাদার আজিম ও পানি উন্নয়ন বোর্ডের অবহেলায় আজ আমি অনিশ্চিত ভবিষ্যতের দিকে পড়তে যাচ্ছি। দ্রুত এ স্লুইস গেইট সংষ্কার করার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে দাবী জানাচ্ছি।
সমাজকর্মী আব্বাস উদ্দিন বলেন, স্লইসগেইট ইজারাদার ও পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকর্তাদের অর্থলোভের কারণে চরম ঝুঁকিতে পড়তে যাচ্ছি আমরা।
ইজারাদার সাবেক ইউপি সদস্য নুরুল আজিম বলেন, জাল বসানোর কারণে এটির ক্ষতিগ্রস্ত হয়নি। মেয়াদ উত্তীর্ণ হওয়ায় এটি ধ্বসে পড়েছে। এটার সংষ্কার দরকার।
এ বিষয়ে স্থানীয় ইউপি সদস্য শাহ আলম এর ব্যবহৃত মুঠোফোনে বেশ কয়েকবার যোগাযোগের চেষ্টা করেও সে সংযোগ না দেয়ায় বক্তব্য দেয়া সম্ভব হয়নি।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ সাইফুল ইসলাম বলেন,স্লইসগেইট ধ্বসে পড়ার সংবাদ পেয়েছি। আমি সরেজমিনে গিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ার জন্য ডিসি মহোদয়কে অবগত করব।
পানি উন্নয়ন বোর্ডের দায়ীত্বপ্রাপ্ত কক্সবাজার জেলার প্রধান প্রকৌশলী অরূপ চক্রবর্তীর কাছে এ বিষয়ে জানতে চাইলে বলেন, ৪১ নং স্লুইস গেইট ধ্বসে পড়ার সংবাদ পেয়ে লোক পাঠিয়েছি। গত বছরও ধ্বসে পড়েছিল। আমরা সংষ্কারের উদ্যোগ নিয়েছিলাম। কিন্তু তড়িগড়ি করে উপজেলা প্রশাসন সংষ্কার করায় জরুরী বরাদ্ধের টেকসই কাজ হয়নি। এখনের বিষয়ে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে অবহিত করেছি এবং জরুরী ভিত্তিতে সংষ্কারের জন্য প্রস্তাবনা প্রেরণ করেছি। এখনো প্রস্তাবনার অনুমোদন পায়নি। অনুমোদন পেলে কাজ শুরু করা হবে।

সর্বশেষ - Uncategorized

আপনার জন্য নির্বাচিত

উখিয়া উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ১৩ জনের মনোনয়নপত্র অনলাইনে দাখিল: সব প্রার্থীই আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে জড়িত

মিরসরাইয়ে দুই কিশোরী ফুটবল খেলোয়াড়কে নতুন ঘর দিলেন এমপি

ঠাকুরগাঁওয়ে ৫ দিন ধরে সূর্যের দেখা নেই

সিরাজগঞ্জে বিভিন্ন হাসপাতাল, ক্লিনিক ও  ডায়াগনস্টিক মালিকদের নিয়ে বর্জ্য ব্যবস্থাপনা প্রশিক্ষণ কর্মশালা

বান্দরবানে সেনা জোন কর্তৃক টুর্নামেন্টে ব্রাদারহুড ভলিবল দলকে হারিয়ে রোয়াংছড়ি ভলিবল দল চ্যাম্পিয়ন

রাণীশংকৈল উপজেলার নন্দিত চেয়ারম্যান শাহারিয়ার আজম মুন্না আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় যুব ও ক্রিড়া উপ-কমিটির সদস্য হলেন

জীবননগরে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে পিতা-পুত্রকে কুপিয়ে জখমের ঘটনা ঘটেছে

গলায় ঘড়ি পরে চমকে দিলেন রিহানা

চকরিয়ায় র‌্যাবের অভিযানে সশস্ত্র ডাকাত দলের ৭ সদস্যকে অস্ত্র সহ গ্রেফতার

পেকুয়ায় আদর্শ মহিলা মাদ্রাসার সভাপতির বিরুদ্ধে ১০ লক্ষ টাকা লোপাটের অভিযোগ